গেম অফ থ্রোন্স থেকে যে শিক্ষা আপনি নিতে পারেন

252

619

গেম অফ থ্রোন্স থেকে যে শিক্ষা আপনি নিতে পারেন

  • 0
  • #অন্যান্য
  • Author: rokomari
  • Share

ব্যক্তি ও কর্মজীবনে সফলতা লাভের একটি অন্যতম উপায় হলো যেকোনো কাজে নেতৃত্ব দেওয়া। কিন্তু সবাই নেতৃত্ব দিতে পারেনা। কেউ কেউ এই ক্ষমতাটি জন্মগতভাবে লাভ করলেও বেশীরভাগ মানুষকেই এই কঠিন কিন্তু অতীব প্রয়োজনীয় গুণটি অর্জন করতে হয় কঠিন অধ্যবসায় দ্বারা। মুখোমুখি হতে হয় অনেক প্রতিকূল পরিস্থিতির। কিন্তু নিজের চোখ-কান একটু খোলা রাখলেই এই ব্যাপারটি অনেক সহজ হয়ে যায়। সাম্প্রতিক সময়ের একটি জনপ্রিয় টিভি সিরিজ হলো গেম অফ থ্রোন্স। এই সিরিজটিতেই রয়েছে নেতৃত্বের হাজারো পাঠ। তার মধ্য থেকেই কিছু তুলে ধরা হলো আজকের এই লেখায়…

নেড স্টার্কের থেকে নেতৃত্বের পাঠঃ

সিরিজটির অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ চরিত্র হলো নেড স্টার্ক। সিরিজটিতে তার চরিত্রের মধ্যেই ফুটে উঠেছে একজন নেতার করণীয় ও বর্জনীয় দিকসমূহ।

অন্যের উপর নিজের মত চাপিয়ে না দেওয়াঃ

গেম অফ থ্রোন্সের এর শুরুতেই নেড স্টার্ককে একটি কঠিন পরিস্থিতির মুখোমুখি হতে হয় যখন তার বন্ধু রাজা রবার্ট ব্যারাথিওন তাকে যখন তার প্রধান পরামর্শদাতা হতে বলেন। তিনি যখন রাজার রাজধানীতে পৌঁছান, তখন তিনি শুরুতেই একটি ভুল করে বসেন যা প্রায় সব নেতারাই করে থাকেন। তা হলো অন্য সভাসদদের উপর তার সিদ্ধান্ত চাপিয়ে দেওয়া। তিনি সবাইকে তার নিজের মুল্যবোধের ভিত্তিতে বিচার করতে শুরু করেন। অন্যদের ভিন্ন মতামত তার দৃষ্টি এড়িয়ে যায় যার ফলশ্রুতিতে তিনি অনেকের সাথে বিরোধে জড়িয়ে পড়েন। এক্ষেত্রে শিক্ষণীয় দিকটি হলো অন্যের মতকেও প্রাধান্য দেওয়া

 

রাগ নিয়ন্ত্রনে রাখাঃ

সিরিজের একপর্যায়ে রাজা রবার্ট ও নেডের ভিন্নমতের কারণে তাদের মধ্যে মনোমালিন্য তথা ক্রোধের সঞ্চারণ ঘটে। তাদের পারস্পারিক এই মনোমালিন্য  রাজক্ষমতায় ফাটলের সৃষ্টি করে এবং রাণী সার্সির জন্য একটি বড় রকমের একটি সু্যোগের সৃষ্টি করে দেয়। এখানে শিক্ষনীয় বিষয়টি হলো, নিজের রাগকে কখনোই নিজের নিয়ন্ত্রনের বাইরে যেতে না দেওয়া।

কাউকে অতিরিক্ত বিশ্বাস না করাঃ

নেডের মুল্যবোধের প্রধান উপাদানগুলো হলো, কর্তব্য, সম্মান, সাহস ও পরিবার। রানী সার্সির তার প্রতি আচরণে নেড সার্সিকেও নিজের মতো ভাবতে শুরু করে। যার ফলশ্রুতিতে তিনি সার্সির পরিকল্পনা বুঝতে ব্যর্থ হয় এবং যার মাশুল তাকে নিজের প্রাণের বিনিময়ে দিতে হয়। এখানে শিক্ষনীয় বিষয়টি হলো, কাউকে অতিরিক্ত বিশ্বাস কাজের সুস্থ পরিবেশ নষ্ট করতে পারে তাই কাউকেই অন্ধভাবে বিশ্বাস করা ঠিক নয়।

জন স্নোর থেকে নেতৃত্বের পাঠঃ

গেম অফ থ্রোন্সের আরেকজন অন্যতম জনপ্রিয় চরিত্র হলো জন স্নো। নাইটস্‌ ওয়াচ ফ্র্যাটারনাল অর্ডারের অধিপতি হিসেবে তাকে প্রায়ই অনেক গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নিতে হয়। আর এই সব সিধান্তের মাঝেই লুকিয়ে আছে নেতৃত্বের অনেক গুণাবলী।

স্ট্র্যাটেজি অনুসারে অগ্রসর হওয়াঃ

আইস ওয়ালের প্রতিরক্ষায় নিযুক্ত সেনাপতি জন স্নোকে একবার একটি খুবই শক্তিশালী শত্রুর মুখোমুখি হতে হয় যারা মৃতকে জীবিত করতে পারত। এসময় জনের সামনে দুইটি রাস্তা খোলা ছিল,

 ১। শত্রুর মোকাবেলা করা অথবা

২। অপর এক শত্রুর সাথে হাত মেলানো যাদের সাথে মৈত্রী করা সম্ভব।

এই ক্ষেত্রে জন নিজের উপস্থিত বুদ্ধির পরিচয় দেয় এবং শত্রুর সাথে হাত মেলানোর সিদ্ধান্ত নেয়। এভাবে সে নিজের লোকদের অধিকাংশকেই রক্ষা করতে সক্ষম হয়। এই সময়টাতে জন নিজেকে একজন বড় স্ট্র্যাটেজিস্ট হিসেবে প্রমাণ করতে সক্ষম হয়, কারণ তার পরিকল্পনার কারণেই সে বড় ধরনের বিপদ থেকে তার লোকদের বাঁচাতে সক্ষম হয়।

A leader is one who knows the way, goes the way, and shows the way. 
-John C. Maxwell 


সবসময় সৎ থাকা ও বৃহৎ স্বার্থের দিকে বেশী মনোযোগী হওয়াঃ

জন স্নোর একটি বড় গুণ হলো তার সততা। নিজের জন্মপরিচয় সম্পর্কে অজ্ঞাত হয়েও সে সব সময় সবার ভালোর কথা চিন্তা করে সিদ্ধান্ত নিয়েছে। ন্যায়-অন্যায়ের গভীর অনুভব তাকে একজন ভালো নেতা হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করেছে। এরপর সে লর্ড কমান্ডার হিসেবে নিজের ক্ষমতার ব্যবহার করে ওয়াইল্ডিংসদের তার আশ্রয়ে রাখার ব্যবস্থা করে যা তার ক্ষমতাকে আরও সুসংহত করে।

কল্পনা ও বাস্তবের নেতাদের মধ্যে পার্থক্যঃ

বাস্তব ও কল্পনার মধ্যে আকাশ-পাতাল তফাত থাকলেও, একটি কল্প-কাহিনি তখনই জনপ্রিয় হয় যখন বাস্তবতার সাথে তার চরম মিল থাকে। গেম অফ থ্রোন্স ও তেমনই একটি কল্প-কাহিনি যা জনমনে জায়গা করে নিয়েছে বাস্তবতার সাথে এর মিল্গুলোর কারণে। একজন মানুষ শুধুমাত্র সফল হলেই সে একজন ভালো নেতা হতে পারেনা, বরং যখন সে তার ভুল থেকে শিক্ষা নেয় এবং সেই জ্ঞান দ্বারা তার অধিনস্তদের সফলভাবে নেতৃত্ব দিতে পারে তখনই তাকে একজন ভালো নেতা বলা যেতে পারে। ঠিক একইভাবে গেম অফ থ্রোন্স এর নেতাগুলোও একেবারে পারফেক্ট নয়। তাদের মধ্যেও গলদ আছে, কিন্তু এই গলদ্গুলোই তাদের বাস্তব করে তুলেছে, তাদের কর্মপন্থাকে দিয়েছে বৈধতা।

নেতৃত্ব গুণাবলী বৃদ্ধির জন্য যে বইগুলো সংগ্রহে রাখতে পারেন

Write a Comment