স্মার্ট হতে চান ? তবে ‘আমি জানি না’ বলতে শিখুন

আমি জানি না

কিংবদন্তী দার্শনিক সক্রেটিস। যাকে ওরেলকো অব ডেলফির দেবী পাইথিয়া জানিয়েছিলেন ‘সক্রেটিসের চেয়ে জ্ঞানী আর কেউ নেই’। এ বিষয়ে সক্রেটিস বলেন- ‘আমি সবচেয়ে বিজ্ঞ ও বুদ্ধিমান মানুষ। কারণ আমি অন্তত এটা জানি যে আমি কিছুই জানি না’

আমার ধারণা সক্রেটিস যদি এখন বেঁচে থাকতেন, সম্ভবত তিনি বেশ হতাশ হতেন। কেননা আমরা এমন এক পৃথিবীতে বাস করছি যেখানে সবাই খুব নিশ্চিত, কেউ স্বেচ্ছায় স্বীকার করতে রাজি নয় যে তার ভুল হতে পারে। ব্যাপারটি এমন মনে হয় যে, কোন মতবাদের মূল বিষয়বস্তু সঠিকভাবে বোঝার চেয়ে পুরোনো মতবাদটা ধরে রাখাই বেশি প্রয়োজন।

আচ্ছা, একরকম আমরা মেনেই নিলাম কঠোর সমালোচনামূলক চিন্তাধারার চেয়ে অন্ধ অনুসরণের ওপর ভিত্তি করে বিশ্বাস ধরে রাখাই শ্রেয়। এবং যদি আপনি সঠিক পথ বেছে নিতে না পারেন, ভালো। তবে এরপর হয় আপনি পরিহার হবেন না হয় এড়িয়ে চলার আখ্যায় আখ্যায়িত হবেন।

এটা কিন্তু আমাদের সময়ে একেবারে নতুন নয়, কিন্তু ইন্টারনেট বিষয়টিকে আরো বিবর্ধন করেছে।

না বলতে শিখুন
না বলতে শিখুন (হার্ডকভার) by ওয়াহিদ তুষার

BUY NOW

এর একটি অংশ আবেগ অনুভূত হওয়া। যেখানে আমরা নিশ্চিত কোন বিষয় নিয়ে এতটাই ভাবি, যে আমাদের অন্য পাশে কি আছে তা দেখতেই পাই না। অর্থাৎ আমরা জানিও না যে আমাদের অনেক কিছুই অজানা। তাই আমরা আমাদের ভুলটাকে সহজভাবে মেনে নিতে পারি না। এটাই আমাদের সমস্যা। আসুন, জেনে নেই ‘আমি জানি না’ এর ভিতর দিয়ে কিভাবে আমরা নিজেদের স্মার্ট হিসেবে গড়ে তুলতে পারি।

অনিশ্চয়তাঃ যেভাবে ভালো সিদ্ধান্ত গ্রহনের হাতিয়ার

আমরা যা দেখছি এবং চারপাশে যা পর্যবেক্ষণ করছি তার সবকিছু প্রায় একই রকম। পরিবেশের তথ্যভান্ডার থেকে শুধুমাত্র ছোট ভগ্নাংশ গ্রহণ করতে পারে আমাদের ইন্দ্রিয়। যার খুব সামান্য অংশই মস্তিষ্ক সচেতনভাবে প্রক্রিয়াজাত করতে পারে।

আমাদের দেহে যে তরঙ্গদৈর্ঘ্য রয়েছে তার প্রমাণ মেলে আমরা চারপাশে সুগন্ধযুক্ত গন্ধ পাই, সেই তরঙ্গদৈর্ঘ্য আমাদের চোখের সাহায্যে পরিচালনা করা হয়, এমনও শব্দ আছে যা আমরা শুনি অথচ পুরোপুরি শুনতে পাইনা, এমনকি আমাদের অবচেতন মনে এমন প্রভাব পরে যে, কোনভাবেই কিছুর সাথে সম্পর্কযুক্ত করতে পারি না।

চেঞ্জ ইয়োর থিংকিং চেঞ্জ ইয়োর লাইফ
চেঞ্জ ইয়োর থিংকিং চেঞ্জ ইয়োর লাইফ (হার্ডকভার) by ব্রায়ান ট্রেসি

BUY NOW

যদি আমাদের প্রকৃতি ও ভাবাদর্শের মাধ্যমে পৃথিবীর সাথে আমাদের মিথস্ক্রীয়ার ফলাফল স্বরূপ আনা জটিলতা যুক্ত করতে চাই। তবে গভীরতম স্তরে গিয়ে দেখতে পাব আমাদের সম্পূর্ণ জ্ঞান থাকার সম্ভাবনা একেবারেই নেই।

আমরা কেউই পুরোপুরি সঠিক নই। নিশ্চিত থাকা একটি বিভ্রম মাত্র। এবং ভুল করার মধ্যে কোন লজ্জা নেই। কেননা প্রাকৃতিকভাবেই পুরো পৃথিবী সম্পর্কে আমাদের উপলব্ধি কখনো ঠিক, আবার কখনো ভুল।

সময়ের সাথে সাথে, কিছুটা কম ভুল করে আমাদের চারপাশকে উন্নত করার চেষ্টা করি। আমরা প্রায়ই চারপাশকে অনুভব করি, যাচাই করি, নিজেকে অনবরত প্রশ্ন করি যতক্ষণ না পর্যন্ত কিছু কাজ হয়। অনিশ্চয়তা কখনো এড়িয়ে যাবার শর্ত হতে পারে না। তবে এটি ভালো সিদ্ধান্ত গ্রহনের হাতিয়ার।

মাইন্ডসেট (হার্ডকভার) by ক্যারল এস ডিউইক

BUY NOW

আপনিও কি অন্ধ অনুসারী রোগে আক্রান্ত ?

প্রাথমিকভাবে অনিশ্চয়তার মুখোশ পড়ে থাকাটাই বেশি কার্যকর। কোন ভাবে, যদি আমাদের সম্পূর্ণরূপে গঠিত মতামত না থাকে, তবে অন্য মতাদর্শ, সমষ্টি এবং মানুষের প্রতি নজর দিতে পারি। যাদেরকে ইতোমধ্যেই সনাক্ত করা হয়েছে প্রমাণিত ট্র্যাক রেকর্ড হিসেবে।

আমাদের বেশ কিছু চলতি নিয়ম আছে যা অসাধারণ কোন দর্শনের আওতায় হয়তো পরে না। কিন্তু সেগুলোকে যদি ছোটখাট বিষয়ে ব্যবহার করি তা খুব বেশি ক্ষতি সাধন করবে না বলেই আমার ধারণা।

চিন্তা করা কিন্তু খুব কঠিন কাজ, তাই যতটা সম্ভব এই শক্তিটাকে সংরক্ষণ করাই শ্রেয়। সমস্যা তখনই ঘটে যখন আমরা নিজেদের মুক্তমনা অথবা সংকীর্ণ টাইপ কোন এক ছাচে ফেলে দেই, আবার অনেক সময় আদর্শ হিসেবে মেনে নেই পছন্দের নায়ক কিংবা লেখকদের কথা। এর ফলে পৃথিবীর অন্যান্য সব মতাদর্শ আমরা সহজভাবে গ্রহন করতে পারি না। সবই সমালোচনামূলক মনে হয়।

আবার এক্ষেত্রে কিছু প্রতিবন্ধকতাও আছে। যখন মানুষ নিজেরা মতামত নিয়ে চিন্তা করা শুরু করবে তখন এমন কিছু প্রশ্নের মুখোমুখি হতে হবে যাতে সাধারণ স্বাভাবিকতা নষ্ট হতে থাকবে।

প্রতিটি মানুষ তাদের নিজস্ব আলাদা আলাদা অভিজ্ঞতার সমষ্টি। যা কখনোই অন্য মানুষের মতাদর্শের সাথে সংযোগ স্থাপন করা যাবে না। তাই অন্যের মতাদর্শের ওপর ভর করে চলার চেয়ে নিজের কোন মতাদর্শ না থাকাই উত্তম।

এক্স্যাক্টলি হোয়াট টু সে
এক্স্যাক্টলি হোয়াট টু সে: দ্য ম্যাজিক ওয়ার্ডস ফর ইনফ্লুয়েন্স এন্ড ইমপ্যাক্ট (হার্ডকভার) by ফিল এম জোন্স

BUY NOW

 ‘আমি জানি না’  কেন মহামূল্যবান কথা?

যখন আপনি ভেবে নেবেন, অজ্ঞতা স্বীকার করে নেয়াই সর্বোত্তম পন্থা। তখন মাঝে মাঝে, ‘আমি জানি না’ সবচেয়ে ভালো উত্তর। তাই বলে এই নয় যে নতুন কোন মতামত অথবা কঠিন কোন সিদ্ধান্ত থেকে এড়িয়ে যেতে হবে। এটি শুধুমাত্র নিজের যোগ্যতা এবং সচেতনতার প্রতি দৃঢ় অবস্থান তৈরি করে।

যে কোন বিষয় সম্পর্কেই আমরা অনেক তথ্য জানি। আবার নিয়মিত সেসব বোঝাও দুষ্কর। তবে তা যদি বিষয়ের সাথে সম্পর্কিত না হয় তবে অজান্তে থাকাই ভালো। আর যদি সম্পর্কযুক্ত হয় তবে সময় নিয়ে চিন্তা করা উচিত।

অধিকাংশ মানুষই নিজেদের অজ্ঞতা প্রকাশ করতে স্বাচ্ছন্দ বোধ করে না। বরং তাদের পূর্বে জানা কোন মতামতকে চাপিয়ে দিতেই বেশি পছন্দ করে। এবং তারা কিছু ফাঁকা যুক্তি দেখিয়ে নিজেদের নিশ্চিত অবস্থানকে প্রমাণ করার চেষ্টা করে।

‘আমি জানি না’ কথাটি শুধুমাত্র যে নিজের যোগ্যতা ও সচেতনতার মাঝে অবস্থান করতে সাহায্য করে তাই নয়, বরং এতে সম্ভাব্য ক্ষতির ঝুকি অনেক কমে যায়। এবং এর বিপরীতে সঠিক উত্তর জানতে পাওয়ার সম্ভাবনাও বেশি।

কোন কিছুর বিষয়ে সহজে পথ খুঁজে নেয়ার পরিবর্তে তা সঠিকভাবে জানতে সাহায্য করে অনিশ্চয়তা। স্মার্ট হতে আরো উৎসাহ যোগায়।

কেন মেনে নিতে হবে অজ্ঞতাকে ?

জীবন অনেক জটিল এবং এলোমেলো। তাই সবকিছু না জানাই ভালো। বরং নিজের একটি গঠনমূলক মতাদর্শ তৈরি করতে সময় নিয়ে চিন্তা করা প্রয়োজন। সে পর্যন্ত অজ্ঞতা স্বীকার করে নেয়াই বেশি কার্যকর।

আমরা এমন এক পৃথিবীতে বাস করি যা নানান রকম আইডিয়ায় ইতোমধ্যেই পরিপূর্ণ। তার সব কিন্তু অনেক ভালো আইডিয়া নয়। আবার সবার জন্য সবকিছু সঠিক না। তাই প্রশ্ন করতে হবে, সমালোচনা করতে হবে এবং নিজের মানসিকতা পরিবর্তনের জন্য ভয় পেলে চলবে না। কারণ কোন নিয়মই চিরন্তন নয়।

আনলিশ ইউর ট্রু পটেনশিয়াল
আনলিশ ইউর ট্রু পটেনশিয়াল (হার্ডকভার) by গোলাম সামদানি ডন

BUY NOW

এক জায়গায় দাড়িয়ে থেকে কেউ কোন দিন এগোতে পারেনা। আমরা যতক্ষন পর্যন্ত নিজেদের সঠিক মনে করব ততক্ষণ কোন কিছু অর্জন করতে পারব না। সবকিছুই যাচাই এবং ত্রুটির মধ্য দিয়ে চলছে। তাই পৃথিবীকে জানতে হলে নিজের অজ্ঞতা স্বীকার করায় অভ্যস্ত হতে হবে। আর এটাই আমাদের মনকে উন্মুক্ত করে দেবে।

এমনই কিছু বই হতে পারে  আপনার সহযোগী

বইগুলোর কিছু অংশ পড়তে ক্লিক করুন ! 

Rokomari Editor

Rokomari Editor

Published 05 Dec 2018
Rokomari is one of the leading E-commerce book sites in bangladesh
  0      0
 

comments (0)

Leave a Comment

You May Also Like This Article

Rokomari-blog-Logo.png