সফলতার গোপন রহস্য ৮টি!

টেড টকের বক্তা রিচার্ড স্ট. জনসনের মতে সফলতার রহস্য
সফলতার গোপন রহস্য

এটা সত্যিকার অর্থে দুই ঘন্টার একটা উপস্থাপনা। স্কুলে স্কুলে আমি এই বক্তৃতা দিয়ে থাকি। কিন্তু এখন এটাকে কমিয়ে ৩ মিনিটে নামিয়ে এনেছি আমি।

এর শুরুটা হয় এক উড়োজাহাজে, সাত বছর আগে। টেড-এ আসছিলাম সেদিনও। আমার পাশের সিটে বসেছিল এক হাই স্কুলে পড়ুয়া কিশোরী। মেয়েটা অত্যন্ত গরীব পরিবার থেকে এসেছিল। জীবনে কিছু করতে চাইছিল সে। আলাপচারিতার ফাঁকে আমাকে এক সময় জিজ্ঞেস করল, “সফলতার দেখা কিভাবে পাওয়া সম্ভব?” আমার সত্যিকার অর্থেই খারাপ লেগেছিল যে, আমি তাকে কোন সদুত্তর দিতে পারিনি।

আমি প্লেন থেকে নেমে TED এ আসলাম, এবং মঞ্চে উঠে ভাবলাম, “আহ, আমি এক ঘর ভর্তি সফল মানুষের মাঝে! তাহলে আমি কেন তাদের জিজ্ঞাসা করছি না, কী তাদের সফল হতে সাহায্য করেছিল? আমি তো সেই বার্তাটা বাচ্চাদের কাছে পৌঁছে দিতে পারি!”

এই জন্যই আজ আমি আবার এখানে, সাত বছর আর ৫০০ সাক্ষাৎকার শেষে। আজ আমি আপনাদের বলব কোন বিষয়টি সফলতার দিকে আমাদের ধাবিত করে । সফলতার গোপন রহস্য ৮ টি–

১। প্রবল উৎসাহ

প্রথম বিষয়টি হচ্ছে- প্রবল উৎসাহ। ফ্রিম্যান থমাস বলেন, “আমি আমার প্রবল উৎসাহ দ্বারা ধাবিত হই।” TED এর হিরোরা কাজ করে ভালবাসা থেকে; টাকার জন্য নয়। ক্যারল কোলেটা বলেন, “আমি যা করি, তা করার জন্য আমি অন্য সবাইকে অর্থ দিব।” এবং সবচেয়ে মজার বিষয় হচ্ছে, আপনি যদি ভালবাসার জন্য করে থাকেন, অর্থ যে কোন ভাবেই হোক আসবে।

২। এটা মূলত পরিশ্রম

রুপার্ট মার্ডক আমাকে বলেন, “এটা মূলত পরিশ্রম। কোনকিছু সহজে অর্জিত হয় না। কিন্তু আমার এসব করতে অনেক মজা লাগে।” হ্যাঁ, TED এর হিরোরা মজা পায় কাজ করতে। এবং তারা অত্যন্ত পরিশ্রম করে। আমি খুঁজে বের করলাম, তারা আসলে কাজাসক্ত নয়, তারা হচ্ছেন সফলতার কাজাভক্ত ।

সফলতার গোপন রহস্য - কঠোর পরিশ্রম

৩। অভিজ্ঞতা অর্জন 

ভালো! এলেক্স গার্ডেন বলেন,”কোন কিছুতে সফল হতে হলে পুরো নাক ডুবিয়ে মাঠে নামতে হবে। এবং তাতে অত্যন্ত অভিজ্ঞ হতে হবে।”

৪। নিজেকে একটা লক্ষ্যে স্থির করা

এখানে কোন জাদু কাজ করে না; এটা চর্চার ফসল, চর্চা আর চর্চা। এবং তা লক্ষ্যকেন্দ্রিক। নরমান জেয়িসন আমাকে বলেন, “আমার মনে হয় সফলতা হচ্ছে নিজেকে একটা লক্ষ্যে স্থির করা।”

৫। নিজেকে ধাক্কা দেওয়া!

ডেভিড গেল্লো বলেন, “নিজেকে ধাক্কা দাও।” শারীরিকভাবে, মানসিকভাবে, তোমার নিজেকে ধাক্কা দিতে হবে, ধাক্কা আর ধাক্কা।” নিজেকে ধাক্কা দিতে হবে কমফোর্ট জোন এবং কমপ্লেক্সন থেকে। গোল্ডি হন বলেন, ” আমার সবসময় আত্মদ্বন্দ্ব ছিল। আমি যথেষ্ট ভাল ছিলাম না; আমি যথেষ্ট বুদ্ধিমান ছিলাম না। আমি মনে করেছিলাম যে আমি এতদূর আসতে পারব না। ” ফ্র্যাঙ্ক গেরি আমাকে বলেন, ” আমার মা সবসময় আমাকে ঠেলতেন।”

৬। সেবা প্রদান করা 

সেবা কর! সেরউইন নুল্যাণ্ড বলেন, ” ডাক্তার হিসেবে সেবা করতে পারাটা আমার জন্য ছিল অত্যন্ত সম্মানের।” এখন অনেক বাচ্চা আমাকে বলে তারা বিত্তশালী হতে চায়। তাই, প্রথম যে কথাটা আমি তাদের বলি, তা হচ্ছে- ” ঠিক আছে, তুমি তোমার নিজেকে সেবা করতে পার না; তোমার অন্যদের যেকোন মূল্যের সেবা প্রদান করতে হবে। কারণ এই উপায়েই মানুষ আসলে বড়লোক হয়।”

৭। ভিশন 

ভাবনা! TED নায়ক বিল গেটস বলেন, “আমার একটি ভাবনা ছিল- পৃথিবীর প্রথম মাইক্রো-কম্পিউটার সফটওয়্যার প্রতিষ্ঠান প্রতিষ্ঠা করা।” আমি বলব, তা অত্যন্ত ভালো একটি ভাবনা ছিল। এবং এই সৃষ্টিশীলতার পেছনে কোন যাদু কাজ করে না- এটা আসলে কতগুলো সাধারণ জিনিস ঠিকমত করার ফলাফল।

৮। বিরামহীনতা!

জো ক্রাউস বলেন, ” বিরামহীনতাই হচ্ছে আমাদের প্রথম কারণ সফলতার।” আপনাকে ব্যর্থতার মধ্য দিয়ে বিরতিহীনভাবে চেষ্টা করতে হবে। যার অর্থ আসলে, “সমালোচনা, বাতিল, জঘন্য মানুষ এবং চাপ।” (হাসি)

সুতরাং, বড় প্রশ্নের উত্তর খুবই সাধারণ- ৪০০০ ডলার খরচ কর এবং TED এ আসো। অথবা ব্যর্থ হয়ে, অন্য আরো আটটা কাজ কর- এবং বিশ্বাস কর, এই আটটি হচ্ছে সবচেয়ে বড় বিষয়, যা সফলতার দিকে ধাবিত করে মানুষকে। ধন্যবাদ TED নায়কদের তাদের সাক্ষাৎকারের জন্য!

(টেড টক-এ রিচার্ড স্ট. জনসনের বক্তৃতার অনুবাদ থেকে)

আরও পড়ুন- দক্ষতা অর্জনের উপায় জানতে চান? তাহলে পড়ুন এই ৫টি বই

আত্মোন্নয়নমূলক বইগুলো দেখতে ক্লিক করুন 

 

Tashmin Nur

Tashmin Nur

লিখতে ভালোবাসি, কারণ- আমি উড়তে ভালোবাসি। একমাত্র লিখতে গেলেই আসমানে পাখা মেলা যায়। আমার জন্ম কোথায়, পূর্ণ নাম কী, কোথায় কিসে পড়াশোনা করেছি, এটুকু আমার পরিচয় নয়। যেটুকু আমাকে দেখা যায় না, সেটুকুই আমার পরিচয়। বাকিটুকু আমার চিন্তায় ও সৃষ্টিকর্মে।

1 thought on “সফলতার গোপন রহস্য ৮টি!”

Leave a Comment

You May Also Like This Article

Rokomari-blog-Logo.png
Join our mailing list and get the latest updates
Loading